জাহাজ ভাঙা শিল্পে প্রথম বাংলাদেশ

জাহাজ রিসাইকলিং (পুনরায় ব্যবহার উপযোগী করা ) এ বাংলাদেশ বর্তমানে বিশ্বে প্রথম অবস্থানে রয়েছে । ২০১৯ সালে বিশ্বের মোট জাহাজের অর্ধেকেরও বেশি জাহাজ রিসাইকল করা হয় বাংলাদেশে । বাংলাদেশের পর জাহাজ রিসাইকলিং এ রয়েছে ভারত ও তুরস্ক ।

২০১৯ সালে বিশ্বের মোট ৯০.৩ শতাংশ জাহাজই রিসাইকল করা হয় এ তিনটি দেশে । সম্প্রতি জাতিসংঘের বাণিজ্য ও উন্নয়ন সংস্থা আংকটাড প্রকাশিত একটি প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয় ।

জাহাজ ভাঙা শিল্পে প্রথম বাংলাদেশ
জাহাজ ভাঙা শিল্পে প্রথম বাংলাদেশ

‘রিভিউ অব ম্যারিটাইম ট্রান্সপোর্ট ২০২০’ শীর্ষক প্রতিবেদনটির একটি রিসার্চ থেকে এ তথ্য উঠে এসেছে । প্রতিবেদন অনুযায়ী , ২০১৯ সালে বাংলাদেশে বিশ্বের মোট জাহাজের মধ্যে ৫৪.৭০ শতাংশ জাহাজ রিসাইকল করা হয় । ভারত তে রিসাইকল করা হয় ২৬.৬০ শতাংশ আর তুরস্ক তে করা হয় ৯ শতাংশ ।

জাহাজ ভাঙে তা পুনরায় ব্যবহার উপযোগী করার কাজটি বাংলাদেশে শিল্প হিসেবে পরিচিত ।

প্রতিবেদনে বলা হয়, ২০১৭ সালের চেয়ে ২০১৮ সালে বাংলাদেশে জাহাজ রিসাইকল করার পরিমাণ বেড়েছে ২৯.১ শতাংশ । কিন্তু ২০১৯ সালে  তা কমে  ২২.৭ শতাংশ তে চলে আসে ।

গবেষণার তথ্য অনুযায়ী সারা বিশ্বে সবচেয়ে বেশি জাহাজ রিসাইকল হয় বাল্ক ক্যারিয়ার। এরপর কনটেইনার শিপ ও অয়েল ট্যাংকার।

 এতে বলা হয়, ২০১৬ থেকে বিশ্বে জাহাজ রিসাইকল কমে গেছে।  ২০১৬ সালে বিশ্বে জাহাজ রিসাইকল হয় দুই কোটি ৯১ লাখ ৩৫ হাজার গ্রোস টন। ২০১৭ সালে হয় দুই কোটি ৩১ লাখ ৩৮ হাজার গ্রোস টন, ২০১৮ সালে হয় এক কোটি ৯০ লাখ তিন হাজার গ্রোস টন এবং ২০১৯ সালে হয় এক কোটি ২২ লাখ ১৮ হাজার গ্রোস টন।

জাহাজ ভাঙা শিল্পে প্রথম বাংলাদেশ

50% LikesVS
50% Dislikes

Leave a Reply

Share